রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৪:৫১ অপরাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও বিদেশে সু-চিকিৎসার দাবীতে গাবতলীর চকবোচাই বন্দরে মশাল মিছিল গাবতলী মহিলা কলেজে নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সোনাতলায় সাবেক সেনা সদস্য আমজাদের ইন্তেকাল সোনাতলায় জাহানাবাদ আলিম মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা বিএনপির চেয়ারপাস্ন খালেদা জিয়ার সুস্থ্যতা কামনায় কাগইলে দোয়া গাবতলীর মহিষাবানে সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত গাবতলীতে বিএনপি নেতা মতি’র রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া গাবতলীতে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার-১ গাবতলীতে খালেদার সুস্থ্যতা কামনায় পৌর বিএনপির দোয়া গাবতলীর উজগ্রাম ছয়ঘড়িয়াপাড়া সমাজ কল্যাণ ক্লাব উদ্বোধন ও দোয়া মাহফিল

গাবতলীতে দাদন ব্যবসায়ী কর্তৃক মুদি দোকানে তালা ॥ থানায় অভিযোগ

গাবতলীতে দাদন ব্যবসায়ী কর্তৃক মুদি দোকানে তালা ॥ থানায় অভিযোগ

সাব্বির  হাসান,গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার গাবতলীতে শ্যালকের কাছ থেকে সুদের টাকা না পেয়ে বোন জামাইয়ের মুদি দোকানে তালা
দিয়ে ব্যবসায়ীকে দোকান থেকে বের করে দিয়েছে এক দাদন ব্যবসায়ী। গত ৮ অক্টোবর উপজেলার দুর্গাহাটা ইউনিয়নের গড়েরবাড়ী গ্রামের মোজাহার সরকার এর ছেলে আবু সাঈদ বাদী হয়ে গাবতলী মডেল থানায় এ অভিযোগ করেন। অভিযোগসূত্রে জানা গেছে, উপজেলার দুর্গাহাটা ইউনিয়নের গড়েরবাড়ী গ্রামের আবুল আকন্দের ছেলে দাদন ব্যবসায়ী শাহিন এর কাছ থেকে একই গ্রামের সিরাজুল আকন্দের ছেলে রফিকুল ইসলাম চলতি বছরের ১৭ জানুয়ারী ১২আনা ৬রতি ওজনের একটি স্বর্ণের চেইন বন্ধক রেখে ৪০হাজার টাকা সুদে ধার নেয়। এরপর থেকে প্রতি মাসে ৪হাজার টাকা করে ৭মাসে মোট ২৮হাজার টাকা সুদ দেয়। উক্ত সুদের টাকার লাভ নেয়াকে কেন্দ্র করে দাদন ব্যবসায়ী শাহিন গড়েরবাড়ী চারমাথা নামকস্থানে রফিকুলের বোন জামাই আবু সাঈদদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ঢুকে জোরপূর্বক দোকানঘর থেকে বের করে দিয়ে তালা লাগিয়ে দেয়। দোকানঘরের ক্যাশ বাক্সে ১লাখ ২৫হাজার টাকা এবং মালামাল বিক্রির আরও ৮/১০হাজার টাকা রয়েছে। উপায় না পেয়ে ভুক্তভোগী আবু সাঈদ বাদী হয়ে দাদন ব্যবসায়ী শাহিনকে অভিযুক্ত করে ঘটনার দিনই গাবতলী মডেল থানায় একটি লিখিক অভিযোগ দায়ের করেছেন। কিন্তু অভিযোগের ৪দিন পেরিয়ে গেলেও কোন কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি থানা পুলিশ। এ ব্যাপারে অভিযোগের তদন্তকারী অফিসার থানার এস আই শামীম বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। সেইসাথে শাহিনকে দোকান খুলে দিতে বলা হয়েছে।

শেয়ারকরুন: