শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ০৬:৪৬ অপরাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবস উপলক্ষে র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিতএম এ মতিন,কাহালু (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ গাবতলীতে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের কমিটি গঠন প্রধান অতিথি ইঞ্জিঃ ইশরাক হোসেন গাবতলী থানা ছাত্রদলের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত সোনাতলায় জোরপুর্বক জমিদখলের চেষ্টা অতঃপর বাড়িঘর ভাংচুর, লুটপাটসহ মারধরে আহত-৩ দেহের একটু রক্ত দিলে যদি বাঁচে একটি প্রাণ ধন্য তোমার পিতা মাতা মহৎ তোমার দান সোনাতলায় ছাত্রদলের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত সোনাতলায় পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রতিযোগিতার মাঠে চলছে প্রার্থীদের গনসংযোগ বগুড়া প্রেসক্লাবের সদস্য. দৈনিক চাঁদনী বাজার পত্রিকার সাবেক সম্পাদক মাকছুদুরের ইন্তেকাল গাবতলীর দক্ষিণপাড়া ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের কমিটি ঘোষনা সুখানপুকুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত

বগুড়ার শিবগঞ্জে ধানের শীষ প্রতীক প্রার্থীর উপর দফায় দফায় হামলাঃমতিনের সংবাদ সম্মেলন

বগুড়ার শিবগঞ্জে ধানের শীষ প্রতীক প্রার্থীর উপর দফায় দফায় হামলাঃমতিনের সংবাদ সম্মেলন

গোলাম রব্বানী শিপনঃ মহাস্থান (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার শিবগঞ্জে ধানের শীষ প্রতীক এর প্রার্থী আলহাজ্ব মতিয়ার রহমান মতিনের উপর দফায় দফায় হামলার অভিযোগ করে সুষ্ঠু নিবার্চনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২১জানুয়ারি) রাত ১০ টায় তার নির্বাচনী প্রধান কার্যালয়ে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। এসময় তিনি লিখিত সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ২১ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার তিনি সহ তার নেতা-কর্মীগণ গণসংযোগ করে বিকাল ৫টায় বাড়ি ফেরার পথে বানাইল গ্রামের লুৎফর রহমান বাড়ীর সামনে পৌছা মাত্রই প্রতিদ্বন্দি প্রার্থী নৌকা প্রতীক বর্তমান মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক এর মটর সাইকেল বহররত ৫০/৬০ জনের একটি দল অতর্কিত ভাবে পিছন দিক থেকে আমার নেতাকর্মীদের উপর হামলা চালায়। এসময় আমার ভাতিজা নাহিদ আঘাত প্রাপ্ত হয়। আমি নেতাকর্মীদেরকে শান্ত করে সংঘর্ষ এড়িয়ে আমার বাড়িতে অবস্থান করি। এর পর প্রতিদ্বন্দ্বি নৌকা প্রার্থীর প্রায় শতাধিক সমর্থকরা মিছিল নিয়ে সন্ধ্যা ৬টায় আমার বাড়িতে ২য় দফা হামলা চালিয়ে আমার বাড়ীর গেট ভেঙ্গে ফেলার চেষ্টা করে এবং এলোপাথারী ভাবে ইট পাটকেল নিক্ষেপ করে। আমি তাৎক্ষনিক ভাবে থানা পুলিশকে খবর দেই। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে এবং আমাকে নির্ভয়ে গণ সংযোগ চালাতে বলেন। আমি প্রশাসনের কথায় আশ্বস্ত হয়ে আমি নিজ গ্রামে গণসংযোগ করে আমার প্রধান নির্বাচনী কার্যালয়ে আসার পথে সন্ধ্যা ৬.৪৫ টার সময় শিবগঞ্জ সোনালী ব্যাংক এর সামনে পৌছা মাত্রই প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মানিক এর একটি মিছিল এসে বিহার ইউপি চেয়ারম্যান মহিদুলের নেতৃত্বে দেশীয় অস্ত্রে শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে পুনরায় আমার উপর হামলা করে। সন্ত্রাসীগণ রাম দা, লোহার রড, দিয়ে আঘাত করে আমাকে প্রাণে মেরে ফেলার চেষ্টা করে। এসময় আমার কর্মী তুহিন আমাকে রক্ষা করতে আসলে তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে গুরুত্বর জখম করে। এরপর তারা নৌকার শ্লোগান দিতে দিতে চলে যায়। আহত তুহিনকে শিবগঞ্জ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। লিখিত বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, শুধু তাই নয় প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীরা বলে বেড়াচ্ছে যে, তারা পুরাতন মটর সাইকেল ও নির্বাচনী অফিসে আগুন ধরিয়ে দিয়ে আমার নিরিহ নেতাকর্মীদের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করবে ও নির্বাচনে প্রচার প্রচারনা থেকে সরে দাড়ানোর জন্য আমার নেতাকর্মীদের বিভিন্ন ভয়-ভীতি প্রদান করে আসছে। নৌকা প্রার্থীর হুকুমে আমার ধানের শীষ প্রতীক টাঙ্গানো পোস্টার ছিড়ে ফেলা হচ্ছে। যাহা এলাকার সকল ভোটারবৃন্দই অবগত আছেন। নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বি করা কি আমার অপরাধ, যে আজ প্রতিদ্বন্দ্বি করতে গিয়ে আমি সহ আমার নেতাকর্মীরা বার বার সন্ত্রাসীদের হামলা স্বীকার হচ্ছি। আমি প্রশাসন সহ নির্বাচনী সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের নিকট আবেদন জানাচ্ছি যে, আমার পৌর সভার নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করবেন। আর প্রতিদ্বন্দ্বি নৌকা প্রার্থী কে বলছি মারতে হয় আমাকে মারুন কিন্তু আমার একটা নেতাকর্মীকে নয়। হামলার বিষয়ে অভিযোগ বা মামলা হয়েছে কি না? জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনো কোন মামলা বা অভিযোগ করা হয়নি তবে প্রস্তুতি চলছে।

শেয়ারকরুন: