রবিবার, ২০ Jun ২০২১, ০৫:৫৩ পূর্বাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
মহিলা ক্রিকেটদলের অধিনায়ককে গাবতলীতে ফুলেল শুভেচ্ছা আদমদীঘিতে বিলুপ্তীর পথে ঐতিহ্যবাহী বাঁশ শিল্প কাহালুতে ২য় গর্যায় ৩০ট গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে দূর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডে পদ পেলেন পত্নীতলার রুবাইত হাসান সান্তাহারে ইয়াবাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার কাহালু পৌর মেয়রকে সচিবালয়ে প্রবেশের কার্ড করে নিয়ে দিলেন এম পি মোশারফ হোসেন কাহালুতে চোর সন্দেহে যুবককে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন কাহালুতে ৫ জুয়াড়ী আটক ডাঃ জোবাইদা’র জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে গাবতলীতে ছাত্রদলের দোয়া মাহফিল ও খাবার বিতরণ গাবতলীর বাগবাড়ীতে মসজিদ নির্মাণ কাজের উদ্ধোধন করলেন ডাঃ পাভেল

বগুড়ার শেরপুরে ইট ভাটার জন্য ভাড়া রাস্তার জমির মালিকদের কোন্দলে বিপাকে শিনু ব্রিকস ইন্ডাস্ট্রিজ

বগুড়ার শেরপুরে ইট ভাটার জন্য ভাড়া রাস্তার জমির মালিকদের কোন্দলে বিপাকে শিনু ব্রিকস ইন্ডাস্ট্রিজ

সেলিম রেজা, শেরপুর(বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার শেরপুর উপজেলার গাড়িদহ ইউনিয়নের বনমরিচা মৌজায় বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহাজ্ব মোঃ শফিকুল ইসলাম শিরু মেসার্স শিনু ব্রিকস ইন্ডাস্ট্রিজ নামে একটি ইট ভাটা স্থাপন করে। কিন্তু ইট ভাটায় প্রবেশ পথ না থাকায় তৎকালীন সময়ে ঐ মৌজায় যেসব কৃষকদের জমি ছিল তার মধ্যে কয়েকজন কৃষকের জমি বাৎসরিক ভাড়া নিয়ে রাস্তা তৈরী করেন। এবং সেই থেকে শান্তিপূর্ণ ভাবে শফিকুল ইসলাম শিরু তার স্থাপনকৃত ইট ভাটায় ব্যাবসা করে আসছেন। কিন্তু ব্যাবসার দীর্ঘদিন পরে বিপত্তি ঘটে রাস্তার জন্য ভাড়া নেওয়া জমির একাংশ মালিকদের কোন্দলে। কারণ জমি ভাড়া দেওয়া মালিকদের মধ্যে কেউ কেউ তার যে পরিমাণ জমি আছে ভাড়া নিত তার চেয়েও বেশী জমির। আবার কেউ কেউ প্রাপ্য ভাড়া থেকে অনেক কম পেত এবং কেউ কেউ আবার ভাড়া থেকে বঞ্চিত ছিল। এই নিয়ে জমির মালিকদের মধ্যে বিবাদ তৈরী হলে বিপাকে পড়েন ইট ভাটার মালিক বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহাজ্ব শফিকুল ইসলাম শিরু। এমতাবস্থায় জমির মালিকদের অভিযোগ সুত্রে সরোজমিনে জানা যায় ইট ভাটার প্রবেশ পথের প্রকৃত জমির মালিক উত্তর পাশে রব্বানি ৬৬ পয়েন্ট, আমজাদ ৩০ পয়েন্ট, মিন্টু ৪৫ পয়েন্ট, রব্বানি সর্দার ৮০ পয়েন্ট, হামিদ ১ শতক, দুদু ৬৫ পয়েন্ট, অবির আলী ২শতক ১০ পয়েন্ট, অবির আলী আরও ২৭ পয়েন্ট, এবং দক্ষিণ পাশে আঃ খালেক ১শতক, ইউনুছ ১ শতক ২৫ পয়েন্ট, আবুল ১ শতক ৫৭ পয়েন্ট, এমতাছ ১শতক ১৮পয়েন্ট, মোনতাজ ১০ পয়েন্ট, আলম ৩৩ পয়েন্ট, মাফুজ ২৩ পয়েন্ট, খোকা ১৫ পয়েন্ট এবং হবি ৪৫ পয়েন্ট জমি বর্তমানে উক্ত মালিকদের নামে বিদ্যমান আছে।
এবিষয় নিয়ে শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত ওসি আবুল কালাম আজাদ এলাকার শান্তির লক্ষ্যে গণ্যমান্য ব্যক্তিদের নিয়ে আপোষ-মিমাংসার জোর প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

শেয়ারকরুন: