বৃহস্পতিবার, ১৭ Jun ২০২১, ১০:৫৪ অপরাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
খালেদা জিয়ার উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশ যাওয়ার অনুমতি প্রসঙ্গে আবারও জোরালো দাবী জানালেন এম পি মোশারফ প্রবীন সাংবাদিক সরওয়ারের মৃত্যুতে জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা’র শোক গাবতলীতে ৩দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের সমাপনী অনুষ্ঠিত মরহুম আজম খানের সহধর্মিনীর সুস্থ্যতা কামনায় গাবতলীর দূর্গাহাটা ২নং ওয়ার্ড আ’লীগের উদ্যোগে দোয়া সোনাতলায় বাঁশহাটা গ্রামে গৃহবধুকে উত্যক্ত করার জেরে মারপিটে অটোচালক আহত বগুড়ায় আবু ত্ব-হা আদনান নিখোঁজের প্রতিবাদে মানববন্ধন আজম খাঁনের স্ত্রী’র সুস্থতা কামনায় গাবতলী উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের দোয়া মাহফিল আন্তনগর লালমনি ও রংপুর ট্রেনের টিকিট সরবরাহ না থাকায় যাত্রীদের বিড়ম্বনা স্বীকার হজ্জ ও ওমরাহ পালন করতে গিয়ে কেউ যেন হয়রানির স্বীকার না হয় সে বিষয়ে জাতীয় সংসদে কথা বললেন–এম পি মোশারফ হোসেন কাহালুতে ৫টি গাঁজার গাছ সহ এক ব্যক্তি আটক

মোকামতলায় ৩ পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ ও তদন্ত কমিটি গঠন

মোকামতলায় ৩ পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ ও তদন্ত কমিটি গঠন

মইনুল ইসলাম সরকার রকেট,মোকামতলা (বগুড়া ) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার মোকামতলায় উদ্ধারকৃত ফেন্সিডিলের সংখ্যার সাথে মামলায় মিল না থাকায় তিন পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার।

এ ঘটনায় শিবগঞ্জ সার্কেল এএসপি আরিফুল ইসলাম সিদ্দিকীকে বরিশাল রেঞ্জে স্ট্যান্ড রিলিজ ও মোকামতলা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ শাহিনউজ্জামান ও মামলার বাদী এসআই সুজাউদ্দৌলাকে পুলিশ হেকোয়ার্টারে সংযুক্ত করা হয়। সুষ্ঠ তদন্তের জন্য ৩ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন।
২১ এপ্রিল বুধবার দুপুরে বগুড়ার পুলিশ সুপারের নির্দেশে ওই তিন পুলিশ কর্মকর্তাকে প্রত্যাহার করা হয়। পুলিশের একাধিক সূত্র জানিয়েছে, গত ৩ এপ্রিল রাতে বগুড়া-রংপুর মহাসড়কে চেকপোস্ট বসিয়ে বিভিন্ন যানবাহন তল্লশী করেন মোকামতলা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সদস্যরা।

চেকপোস্টে নেতৃত্ব দেন শিবগঞ্জ সার্কেলের সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার আরিফুল ইসলাম সিদ্দিকী। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন পুলিশ সদস্য জানান, যানবাহন তল্লাশীকালে গত ৩ এপ্রিল ঢাকাগামী খালেক পরিবহন থেকে নাজিম নামে এক ব্যক্তিকে ৫০ বোতল এবং পিংকি পরিবহন নামে কোচ থেকে সাইফুল ইসলাম নামে একজনকে ১৯৮ বোতল ফেন্সিডিলসহ আটক করা হয়।

এঘটনায় মোকামতলা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে উপ-পরিদর্শক (এসআই) সুজাউদ্দৌলা বাদী হয়ে শিবগঞ্জ থানায় পৃথক দুইটি মামলা দায়ের করে। গত ৪ এপ্রিলে দায়েরকৃত মামলা নং- ৪ ও ৫।

মামলায় পিংকি পরিবহন থেকে উদ্ধারকৃত ১৯৮ বোতল ফেন্সিডিলের স্থলে ১১০ বোতল জব্দ দেখানো হয়। এ

ঘটনায় বাকী ৮৮ বোতল ফেন্সিডিল পুলিশের এক কর্মকর্তা সোর্সের মাধ্যমে বিক্রি করে দেন বলে অভিযোগ উঠে। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুইঁয়া বিপিএম বার, মামলা দুটি ডিবিতে স্থানান্তরের আদেশ দেন।

এছাড়াও তিনি গত ২০ এপ্রিল মোকামতলা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে ফেন্সিডিল উদ্ধারের সময় উপস্থিত পুলিশ সদস্য ছাড়াও মামলার স্বাক্ষীদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করে ঘটনার সত্যতা পেয়েছেন বলে জানা গেছে। এরপর ২১ এপ্রিল বুধবার বগুড়া পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুইঁয়া বিপিএম বার তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের আদেশ দেন। বগুড়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম) মোঃ আব্দুর রশিদ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, মোকামতলা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ও একজন সাব ইন্সপেক্টরকে প্রত্যাহার করে পুলিশ হেডকোয়ার্টারে সংযুক্ত করা হয়েছে এবং সহকারী পুলিশ সুপার শিবগঞ্জ সার্কেলকে বরিশাল রেঞ্জে বদলী করা হয়েছে। বগুড়ার শিবগঞ্জের মোকামতলায় আটককৃত মাদক বিক্রির ঘটনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(পূর্ব) আলী হায়দার চৌধুরী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল (মিডিয়া) ফয়সাল মাহমুদ ও শিবগঞ্জ থানার ওসি সিরাজুল ইসলাম সহ তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে ।

শেয়ারকরুন: