রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৫:১৯ অপরাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও বিদেশে সু-চিকিৎসার দাবীতে গাবতলীর চকবোচাই বন্দরে মশাল মিছিল গাবতলী মহিলা কলেজে নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সোনাতলায় সাবেক সেনা সদস্য আমজাদের ইন্তেকাল সোনাতলায় জাহানাবাদ আলিম মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা বিএনপির চেয়ারপাস্ন খালেদা জিয়ার সুস্থ্যতা কামনায় কাগইলে দোয়া গাবতলীর মহিষাবানে সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত গাবতলীতে বিএনপি নেতা মতি’র রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া গাবতলীতে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার-১ গাবতলীতে খালেদার সুস্থ্যতা কামনায় পৌর বিএনপির দোয়া গাবতলীর উজগ্রাম ছয়ঘড়িয়াপাড়া সমাজ কল্যাণ ক্লাব উদ্বোধন ও দোয়া মাহফিল

সোনাতলার মৎস্য চাষির পুকুরে বিষ দুই লক্ষাধিক টাকার মাছ নিধন

সোনাতলার মৎস্য চাষির পুকুরে বিষ দুই লক্ষাধিক টাকার মাছ নিধন

রিমন আহম্মেদ বিকাশঃ বগুড়ার সোনাতলা পৌর এলাকার কানুপুর গ্রামের মৃত তরনীকান্তের ছেলে ‘কানুপুর মৎস্য সমবায় সমিতির’ সাধারণ সম্পাদক মাছচাষী অতুল চন্দ্র প্রামানিকের পুকুরে রাতের আধারে কে বা কাহারা বিষ প্রয়োগ করে দুই লক্ষ টাকার মাছ নিধন করেছে।

সরে জমিনে জানাযায়, উপজেলার পার্শ্ববর্তী গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের শালমারা ইউনিয়নের নিলকণ্ঠপুর গ্রামের মৃত ওসমান আলীর ছেলে আনারুল ইসলামের কাছ থেকে ২ লক্ষ ৩৫ হাজার টাকায় ৩ বছর মেয়াদে ১একর পরিমাণের একটি পুকুর লিজ নেয়।

লিজকৃত পুকুরে অতুল মাছ চাষ করে আসছে। প্রতিদিনের ন্যায় ওই পুকুরে ২৬ মে বুধবার রাত্রী ১০টায় অতুল খাবার দিতে গিয়ে দেখতে পায়, পুকুরের সমস্থ মাছ মরে পানির উপরে ভাসছে। বিষয়টি যেন অতুলের মাথায় বাজ পড়ার মতো।

অতুলের হাউমাউ কান্নার শব্দ শুনে আশে-পাশের লোকজন ছুটে আসে। উপস্থিত লোকজন পুকুরের দৃশ্য দেখে অতুলকে শান্তনা দেওয়ার ভাষা হারিয়ে ফেলে। তারা দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে এই অমানবিক কাজ যারা করেছে, তাদেরকে অভিশাপ দিতে থাকে। এ ঘটনায় এলাকবাসী অতুলের পাশে সরকারী কর্মকর্তাদের দাঁড়ানোর আহ্বান জানান।
এ ব্যাপারে ক্ষতিগ্রস্থ মাছচাষি অতুল জানান, আয়ের উৎস হিসেবে ওই পুকুরটিই তার একমাত্র সম্বল। পুকুরে মাছ চাষ করেই তার তিন ছেলের লেখা পড়াসহ সংসার চলে। তিনি আরও জানান, তার পুকুরে দেশীয় বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় দুই লক্ষাধিক টাকার মাছ নিধন হয়েছে। সরকারী ভাবে কোনো সহযোগীতা না পেলে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে পথে বসতে হবে।

শেয়ারকরুন: