রবিবার, ২০ Jun ২০২১, ০১:৪০ অপরাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
মহিলা ক্রিকেটদলের অধিনায়ককে গাবতলীতে ফুলেল শুভেচ্ছা আদমদীঘিতে বিলুপ্তীর পথে ঐতিহ্যবাহী বাঁশ শিল্প কাহালুতে ২য় গর্যায় ৩০ট গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে দূর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডে পদ পেলেন পত্নীতলার রুবাইত হাসান সান্তাহারে ইয়াবাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার কাহালু পৌর মেয়রকে সচিবালয়ে প্রবেশের কার্ড করে নিয়ে দিলেন এম পি মোশারফ হোসেন কাহালুতে চোর সন্দেহে যুবককে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন কাহালুতে ৫ জুয়াড়ী আটক ডাঃ জোবাইদা’র জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে গাবতলীতে ছাত্রদলের দোয়া মাহফিল ও খাবার বিতরণ গাবতলীর বাগবাড়ীতে মসজিদ নির্মাণ কাজের উদ্ধোধন করলেন ডাঃ পাভেল

সোনাতলায় বরেন্দ্র সেচ স্কীমের ড্রেন হাউজ ও গ্যাস পাইপ ভাংচুর

সোনাতলায় বরেন্দ্র সেচ স্কীমের ড্রেন হাউজ ও গ্যাস পাইপ ভাংচুর

বদিউদ-জ্জামান মুকুল,ষ্টাফ রির্পোটারঃ বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার পল্লীতে দূর্বুত্তরা দিন দুপুরে বরেন্দ্র সেচ স্কীমের ড্রেন হাউজ ও গ্যাস পাইপ ভাংচুর করেছে। এতে করে সেচ কার্যক্রম ব্যহত হচ্ছে।

স্থানীয় এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার দিগদাইড় ইউনিয়নের উত্তর বাঁশাহাটা গ্রামের মৃত গোলাম মোস্তফার ছেলে মোঃ আনারুল ইসলাম একই এলাকায় বরেন্দ্র বহুমুখী সেচ প্রকল্পের আওতায় বরেন্দ্র স্কীম এর আওতায় গত ১ ডিসেম্বর ২০১১ ইং তারিখে গভীর নলকুপ বসিয়ে কৃষকদের জমিতে সেচ কার্যক্রম চালিয়ে আসছে। এরই এক পর্যায়ে গত ২৩ নভেম্বর ২০২০ তারিখ বেলা আনুমানিক ১০টার সময় একই এলাকার কতিপয় মুখচেনা ব্যক্তি অতর্কিত ভাবে হামলা চালিয়ে ওই বরেন্দ্র বহুমুখী সেচ স্কীমের ড্রেন হাউজ ও গ্যাস পাইপ ভাংচুর করে। এ সময় আনারুল ইসলাম বাঁধা দিলে প্রতিপক্ষের লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে তার উপর হামলা চালানোর চেষ্টা করে। অবস্থা বেগতিক দেখে তিনি দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে সটকে পড়েন। এ ঘটনার পর ওই এলাকায় টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে। এ নিয়ে যেকোন সময় রক্ষক্ষয়ী সংঘর্ষ ঘটতে পারে।
এ বিষয়ে আনারুল ইসলাম জানান, আজ মঙ্গলবার তিনি একটি লিখিত টাইপকৃত অভিযোগ ডিউটি অফিসারের নিকট দাখিল করেছেন।
ওই এলাকার একটি মহল বরেন্দ্র বহুমুখী সেচ প্রকল্পের এরিয়া এলাকার মধ্যে গত ২০১৪ সালের প্রথম দিকে একটি গভীর নলকূপ স্থাপন করে সেচ কার্যক্রম চালাচ্ছে বলেও অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে।
স্থানীয় লোকজন জানান, পাশাপাশি দুটি সেচ পাম্প স্থাপন করাকে কেন্দ্র দু’পক্ষের মধ্যে এ ধরনের ঘটনা ঘঠতে পারে বলে আশংকা করা হচ্ছে।
এ বিষয়ে সোনাতলা থানার ওসি মোঃ রেজাউল করিম রেজার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এ বিষয়ে কেউ তাকে অবগত করেননি।

শেয়ারকরুন: