সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০১:২৫ পূর্বাহ্ন

নোটিশ
আমাদের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম.........
শিরোনাম >>>
গবিন্দগঞ্জের উজিরেরপাড়া বাইগুনীতে জমি নিয়ে ত্রিমুখী বিরোধ- ঘরের বেড়া ভাংচুর গাবতলীতে ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত সুখানপুকুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত সোনাতলায় পিঁয়াজ চাষ বৃদ্ধি ও পাটবিজ উৎপাদনের লক্ষ্যে কৃষক প্রশিক্ষণ মোশাররফ হোসেন বগুড়ার সোনাতলায় গাজাগুরু তহসেন আলি সহ ৪ মাদক ব্যবসায়ী আটক নাট্যদিশারি আফসার আহমদ এর স্মরণসভা বগুড়া জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের কমিটি বাতিলের দাবীতে কাহালুতে মানব বন্ধন অনুষ্ঠিত গাবতলীর জামিরবাড়িয়া পাকা সড়কে স্বেচ্ছাশ্রমে মেরামত গাবতলীর ১১জন বিসিএস ক্যাডারে নিয়োগপ্রাপ্ত ডাক্তারগণকে সংবর্ধণা সাম্প্রদায়িক সহিংসতা বন্ধ ও দোষীদের শাস্তির দাবীতে বগুড়ায় সুজনের মানববন্ধন

সোনাতলায় বসতবাড়ির জায়গা-জমি নিয়ে সংঘর্ষ আহত ১০, আটক ৪

সোনাতলায় বসতবাড়ির জায়গা-জমি নিয়ে সংঘর্ষ আহত ১০, আটক ৪

বদিউদ-জ্জামান মুকুল,ষ্টাফ রিপোর্টারঃ বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার মধুপুর ইউনিয়নের ছাতিয়ানতলা গ্রামে বসতবাড়ির জায়গা-জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে দু’পক্ষের মধ্যে মারপিটের ঘটনায় উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১০জন আহত হয়েছে। আহতদেরকে স্থানীয় ও বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা আংশকাজনক। এ ঘটনায় পুলিশ ৪ জনকে আটক করেছে।
স্থানীয় লোকজন ও থানা সূত্রে জানা গেছে, ২৬ অক্টোবর সোমবার বেলা আনুমানিক ৩টার সময় বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার মধুপুর ইউনিয়নের ছাতিয়ানতলা গ্রামে মকবুল হোসেন ও আব্দুল কাফি গংদের মধ্যে বসতবাড়ির জায়গা জমি মাপযোগের কাজ চলছিল। এ সময় উভয়পক্ষের নারীদের মধ্যে প্রথমে কথা কাটাকাটি থেকে সংঘর্ষে রুপ নেয়। পরে মারপিটের ঘটনা মহিলা থেকে পুরুষদের মধ্যে বিস্তার লাভ করে। এক পর্যায়ে উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি থেকে লাঠি দিয়ে মারপিট শুরু হয়। এতে করে মকবুল হোসেন গ্রুপের আব্দুল মজিদ (৩০), বালিকা বেগম (৫৫), বুলু বেপারী (৪৫), নাজমুল হক (১৫), হাসেন আলী (৫৫) এবং নূরনবী গ্রুপের নূরনবী (৪৫), সোনা মিয়া (৪০), জিল্লুর রহমান (৩০), আনিছুর রহমান (৩৫), আইবর (৫৫), আতিকুল ইসলাম (২২), মাসুদ (২৮) গুরুতর আহত হয়। পরে স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধার করে সোনাতলা হাসপাতালে ভর্তি করায়। সেখানে আহতদের মধ্যে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আব্দুল মজিদ, বালিকা বেগম, জিল্লুর রহমান ও নূরনবীর অবস্থার অবনতি হলে তাদেরকে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।
এ ঘটনার পর উভয়পক্ষের মধ্যে টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে। যেকোন সময় এ নিয়ে আবারও রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশংকা রয়েছে।
২৭ অক্টোবর মঙ্গলবার বিকাল ৪টায় এ রিপোর্ট লেখা অবধি থানায় কোন মামলা হয়নি। তবে মামলা দায়েরের প্রস্তুুতি চলছিল।
পুলিশ এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ছাতিয়ানতলা গ্রামের রইছ উদ্দিনের ছেলে তাহেরুল ইসলাম, আফতাব বেপারীর ছেলে আতিকুল ইসলাম, মফিজ বেপারীর ছেলে আব্দুল আলিম ও কফিল উদ্দিন বেপারীর ছেলে আব্দুল মালেককে আটক করেছে।
এ বিষয়ে সোনাতলা থানার ওসি রেজাউল করিম রেজার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এ ঘটনার পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা করা হবে।

শেয়ারকরুন: